অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর

অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর প্রদান | খাজনা রশিদ সংগ্রহ

অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর বা খাজনা রশিদ এখন আপনি চাইলে আপনার হাতে থাকা মোবাইল ফোনের মাধ্যমে খুব সহযেই সংগ্রহ করতে পারেন। আমাদের অনেকেই মনে করি খাজনা বা অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর জমা দিতে গেলে ইউনিয়ন ভুমি অফিসে টাকা বেশি রাখে বা আমাদের হয়রানি করে। সেই দিক চিন্তা করে বাংলাদেশ ভূমি উন্নয়ন বোর্ড নিয়ে এলো অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর জমা দেওয়ার সুবিধা।

তাই এখন থেকে আপনি অফিসে না গিয়ে খুব সহজেই আপনার হাতে থাকা মোবাইল বা যে কোনো বিকাশ পয়েন্ট থেকে আপনার খাজনা প্রদান করতে পারবেন। আজ আমি আপনাকে সেই বিষয় নিয়ে বিস্তারিত বুঝিয়ে বলবো। তো আর কথা না বাড়িয়ে শুরু করা যাক…

অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর
অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর

অনলাইনে জমির খাজনা দিতে কি কি তথ্য লাগে

বর্তমানে অল্প কিছু ডকুমেন্টস বা প্রয়োজনীয় তথ্য থাকলেই, নিজে নিজে মোবাইল দিয়ে ঘরে বসেই অনলাইনে জমির খাজনা দেওয়া যায়। এক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় তথ্যগুলো হলো:

  • জমির খতিয়ান।
  • পেমেন্ট পরিশোধ করার জন্য একটি নির্দিষ্ট জাতীয় পরিচয়পত্রের তথ্য।
  • জমির অবস্থান অনুসারে, বিভাগ, জেলা, উপজেলা ও মৌজার তথ্য।
  • পেমেন্ট করার জন্য একটি অনলাইন পেমেন্ট মাধ্যম (বিকাশ/ নগদ/ রকেট/ উপায়/ একপে/ DBBL)।
  • একটি স্মার্টফোন/ কম্পিউটার, মোবাইল নাম্বার ও ইন্টারনেট কানেকশন।

অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর যেভাবে প্রদান করবেন

ভূমি উন্নয়ন কর বা খাজনা রশিদ অনলাইনে প্রদান করার জন্য প্রথমে আপনার হাতে থাকা মোবাইল এর যে কোনো একটি ব্রাউজার অপেন করতে হবে। তার পর লিখতে হবে। অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর এবার সার্চ করেন। নিচে থাকার ছবিটি দেখুন।

খাজনা অনলাইনে প্রদান
খাজনা অনলাইনে প্রদান

আপনি সার্চ করার পরে আপনাকে http://idtax.gov.bd এই লিংকে ক্লিক করুন। এবার উপরে দেওয়া প্রথম ছবির মতো একটি ছবি আসবে আপনি নাগরিক কর্ণারে ক্লিক করুন। তারপর আপনাকে যা করতে হবে তা নিচে দেখুন-
আপনার বিভাগ, জেলা, উপজেলা, মৌজা নির্বাচন করতে হবে। সব শেষে আপনার খতিয়ান হোল্ডিং নির্বাচন করে অনুসন্ধান করুন বাটনে ক্লিক করুন।

যদি আপনার তথ্য ঠিক হয় তাহলে নিচের ছবির মতো আপনার তথ্য চলে আসবে। এবার আপনি আপনার জাতীয় পরিচয় পত্র/ভোটার আইডি কার্ড যেটা দিয়ে আপনার খতিয়ান প্রস্তুত করা হয়েছে। সেটার তথ্য প্রদান করে যাচাই করুন।

খাজনা রশিদ সংগ্রহ
খাজনা রশিদ সংগ্রহ

যাচাই করা শেষ হলে আপনাকে আপনার জমির তথ্য দেখানো হবে। এবং বকেয়া সহ কত টাকা খাজনা আসলো সেটা দেখানো হবে। এছাড়াও নিচে পেমেন্ট করুন অপশনে ক্লিক করলে আপনি কোন মাধ্যমে টাকা দিতে চান এর একটা লিস্ট দেখানো হবে। তো আপনি যে মাধ্যম থেকে টাকা জমা দেবেন সেটি নির্বাচন করুন। এবার আপনি আপনার বাকি নিয়ম মেনে টাকা জমা দিতে পারেন।

জমির খাজনা কত টাকা

জমির খাজনা ভূমি মন্ত্রণালয়ের ঘোষনা অনুযায়ী নির্ধারিত। এক্ষেত্রে,

  • ৫-১০ একর পর্যন্ত জমি হলে, প্রথম ৫ একরের জন্য ৫১ টাকা এবং পরবর্তী প্রতি শতক ৩৬ পয়সা। 
  • ১০-১৫ একর পর্যন্ত জমি হলে, প্রথম ১০ একরের জন্য ২৩১ টাকা এবং পরবর্তী প্রতি শতক ৬০ পয়সা।
  • ১৫-২৫ একর পর্যন্ত জমি হলে, প্রথম ১৫ একরের জন্য ৫৩১ টাকা এবং পরবর্তী প্রতি শতক ৬০ পয়সা করে পরিশোধ করতে হবে।

আরও পড়ুনঃ 

খাজনা রশিদ কিভাবে পাবো

আপনি যে মাধ্যমে টাকা প্রদান করবেন সেই কর্তৃপক্ষ আপনাকে একটা ভাউচার দেবে যেটাতে আপনার ট্রানজেকশন নাম্বার দেয়া থাকবে। আর এই ট্রানজেকশন নাম্বার দিয়ে যে কোনো সময় আপনি আপনার রশিদ ইউনিয়ন ভূমি অফিস থেকে সংগ্রহ করতে পারবেন।

ইতিকথা- অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর বা খাজনা রশিদ আপনি নিজেই সংগ্রহ করতে পারেন এবং আপনার হাতে থাকা মোবাইল দিয়ে জমা দিতে পারবেন আপনার খতিয়ানের কর বা খাজনা। ভূমি সংক্রান্ত যে কোনো তথ্য পেতে আমাদের সাথে থাকুন আপনার প্রয়োজনীয় বিষয় জানতে আমাদের কমেন্ট করুন।

14 thoughts on “অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর প্রদান | খাজনা রশিদ সংগ্রহ”

  1. জাহিদ হাসান

    খাজনা দেওয়ার পর ৭২ ঘন্টা পর খাজনা রশিদ পাই। সাথে সাথে খাজনা রশিদ পাওয়ার উপায় আছে?

    1. প্রত্যেক বিষয়ের একটি প্রসেসিং সময় প্রয়োজন হয়, তাই আপনি এইটুক সময় অপেক্ষা করতেই হবে।

    2. আমি ভুমি অফিসে কর দিয়েছি আমার তো ৭২ ঘন্টার বেশি হয়ে গিয়েছে দাখিলা বা হোল্ডিং নাম্বার পাইনাই

    3. আজাহারুল ইসলাম

      আমি খাজনা দিলাম বিকাশে,রশিদ কিভাবে পাবে।

      1. আপনি যে মাধ্যমে টাকা প্রদান করবেন সেই কর্তৃপক্ষ আপনাকে একটা ভাউচার দেবে যেটাতে আপনার ট্রানজেকশন নাম্বার দেয়া থাকবে। আর এই ট্রানজেকশন নাম্বার দিয়ে যে কোনো সময় আপনি আপনার রশিদ ইউনিয়ন ভূমি অফিস থেকে সংগ্রহ করতে পারবেন।

  2. শাহিন

    অফিসে না গিয়ে কর পরিশোধ করেছি, রশিদ না দিয়ে টোকেন দিছে। এখন অফিসে না গিয়ে অনলাইনে কেমনে রশিদ পাবো জানাবেন।

  3. Mrinal Hossain

    আমার প্রশ্নটা হচ্ছে 72 ঘন্টা সময়টা যে নেয়, এই সময়ে কি রশিদটা সংশ্লিষ্ঠ ভূমি অফিস থেকে এপ্রুভ করে নাকি সরাসরি ভূমি মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইট থেকে রশিদটা আসে??

  4. যদি ভূমি অফিস যেতে হয়। তাহলে অনলাইনে দরকার কি। চোর ত পোষা এটা।

  5. মোঃ শামিম বুলবুল

    আমার খাজনা পরিশোধ করেছি। কিন্তু খাজনা পরিশোধের রশিদ পাইনি। এটা কিভাবে পাব?

      1. মো:রেজাউল ইসলাম

        ভাই আমি ত এক সপ্তাহে আগে এক কম্পিউটার এর দোকান থেকে বিকাশ এ খাজনা দিয়ে ছি কিন্তু রসিদ এখনো পাইনি কি করিনিয়।

  6. মোঃ শামিম বুলবুল

    এখানে তো আমি ব্যক্তিগত মেইল ব্যবহার করেছি। যেটাতে আমি পাব।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top