সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ | ১ রিয়াল = কত টাকা

সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ এই পোস্টে আপনাকে স্বাগতম। এই পোস্টটি থেকে আপনারা প্রতিদিনের সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশে কত টাকা, তার আপডেট তথ্য জানতে পারবেন।

আজ ২২ জুন ২০২৪ ইংরেজি, ০৮ আষাঢ় ১৪৩১ বাংলা, ১৫ জিলহজ্জ ১৪৪৫ হিজরি, শনিবার।

এই লেখাটি পড়ে জানতে পারবেন, সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ, সৌদি ১ রিয়াল কত টাকা, সৌদি আরবের ১০০ টাকা বাংলাদেশের কত, সৌদি টাকার রেট, সৌদি ১ টাকা বাংলাদেশের কত টাকা, সৌদি ১ রিয়াল বাংলাদেশের কত টাকা, সৌদি আরবের ১০০০ টাকা বাংলাদেশের কত, সৌদি আরবের টাকার মান কত, সৌদি আরবের ১৫০০ টাকা বাংলাদেশের কত, সৌদি আরবের এক টাকা বাংলাদেশের কত টাকা, সৌদি ১ রিয়াল বাংলাদেশের কত টাকা আজকের রেট, সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ বিকাশ, Saudi Riyal to Taka | Saudi Riyal to BDT, Saudi 1000 Riyal / Bangladeshi Taka সম্পর্কে সঠিক তথ্য।

সৌদি রিয়াল টু টাকা | Saudi Riyal to Taka

সৌদি আরব রিয়াল বাংলাদেশী টাকা
১ রিয়াল৩১.৩৪ টাকা
১০ রিয়াল৩১৩.৪০ টাকা
১০০ রিয়াল৩১৩৪ টাকা
১০০০ রিয়াল৩১৩৪০ টাকা

আরো দেখুনঃ আজকের দুবাই দিরহাম রেট

প্রিয় ভিজিটর, আমরা কাজ করার উদ্দেশ্যে আর ভ্রমণের জন্য হোক বিভিন্ন দেশে যাওয়া-আসা করতে হয়। পৃথিবীর অন্য সকল দেশের তুলনায় সৌদিআরব ব্যবসা বলেনন আর যেকোন কর্মের দিক থেকে একধাপ এগিয়ে। বিশেষ ভাবে বাংলাদেশি শ্রমিক এবং ভারতীয় নাগরিক কর্মের জন্য সৌদি আরবই বেছে নেন এবং গিয়েও থাকেন। তাদের কষ্টে উপার্জিত আয়ের টাকা যখন দেশে পাঠাতে হয়।

কিন্তু সৌদি টাকার রেট অথবা সৌদি রিয়াল রেট না জানার কারণে অনেক কম মূল্য পেয়ে থাকেন। তাই আমাদের এই লেখাটি তাদের জন্য, যারা দেশে এখন টাকা পাঠাতে চাচ্ছেন। কারণ এখান থেকে সঠিক মূল্যটি আপনি জেনে তারপর দেশে টাকা পাঠাবেন। এতে আপনি জানতে পারবেন সৌদি ১ টাকা বাংলাদেশের কত টাকা অথবা ১ রিয়াল = কত টাকা।

আরো পড়ুন: দুবাই টাকার রেট | ১ দিরহাম = কত টাকা

১ রিয়াল = কত টাকা | সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ

সৌদি আরবের রিয়াল রেট আজকে বাংলাদেশি টাকায়  ৩১.৩৪ টাকা।

সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ
সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ

কখন টাকা পাঠালে সৌদি রিয়াল রেট এর দাম বেশি পাওয়া যায়?

সৌদি আরবের অর্থনৈতিক অবস্থা যখন ভালো হবে তখনই আন্তর্জাতিক মহলে সৌদি রিয়ালের রেট বাড়তি থাকে। যখন দেখবেন আন্তর্জাতিক বাজারে সৌদি আরব রিয়াল রেট বেড়ে গেছে, ঠিক তখনই দেশে টাকা পাঠাবেন।

এতে আপনি তুলনামূলকভাবে সৌদি আরবের রিয়ালের পরিবর্তে বাংলাদেশী টাকা বেশি পাবেন। তাই আমাদের সৌদি রিয়াল রেট লেখাটি নিয়মিত পড়ুন যার মাধ্যমে আপনি রিয়ার আপডেট জানতে পারবেন।

আরো পড়ুনঃ আজকের টাকার রেট (বিভিন্ন দেশের)

সৌদি রিয়াল রেট এর মূল্য কখন কমে যায়?

সৌদি আরবের অর্থনৈতিক অবস্থা যখন খুবই খারাপ থাকবে তখনই নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য বৃদ্দি পাবে এবং রিয়াল রেট কমে যাবে। এই সময় যদি আপনি দেশে টাকা পাঠান তাহলে কিন্তু সৌদি রিয়ার রেট খুবই কম পাবেন।

Saudi Riyal Rate | Saudi Riyal to BDT

আজ সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ ৩১.৩৪ টাকা

সৌদি আরব ভিসা চেক করার নিয়ম

সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ বিকাশ – ৩১.৪৭ টাকা।

সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশে কত?

সৌদির ১ রিয়াল = বাংলাদেশি  ৩১.৩৪ টাকা।

সৌদি আরবের ১,০০০ টাকা বাংলাদেশের কত টাকা?

আজকের সৌদি আরবের ১,০০০ রিয়াল বাংলাদেশি টাকায় ৩১,৩৪০ টাকা। অর্থাৎ, কেউ যদি সৌদি আরব থেকে বাংলাদেশে ১,০০০ রিয়াল পাঠায়, তাহলে বাংলাদেশের অনুমোদিত ব্যাংক থেকে ৩১,৩৪০ টাকা উত্তোলন করতে পারবে।

সৌদি আরবের ১০০ টাকা বাংলাদেশের কত টাকা?

সৌদিতে ১০০ রিয়াল বাংলাদেশি টাকায় ৩,১৩৪ টাকা। অর্থাৎ, কেউ যদি সৌদি আরব থেকে বাংলাদেশে ১০০ রিয়াল পাঠায়, তাহলে বাংলাদেশের অনুমোদিত ব্যাংক থেকে ৩,১৩৪ টাকা উত্তোলন করতে পারবে।

সৌদি আরবের ১,৫০০ টাকা বাংলাদেশের কত?

বাংলাদেশ থেকে যারা সৌদি আরবে প্রবাসী হিসেবে কাজ করতে যায়, তাদের মধ্যে অধিকাংশই প্রাথমিকভাবে ১,৩০০-১,৫০০ রিয়াল বেতন পেয়ে থাকে। তাই অনেক বাংলাদেশি বা সৌদিতে অবস্থানকারী জানতে চায় তার বেতনের টাকা বাংলাদেশী টাকায় কত হবে।

সৌদি আরবের ১,৫০০ রিয়াল বাংলাদেশি টাকায় ৪৭,০১০ টাকা। অর্থাৎ, আজকের টাকার রেট অনুযায়ী কেউ যদি সৌদি আরব থেকে বাংলাদেশে ১,৫০০ রিয়াল পাঠায়, তাহলে বাংলাদেশের অনুমোদিত ব্যাংক থেকে ৪৭,০১০ টাকা উত্তোলন করতে পারবে।

সৌদি রিয়াল কোথায় ভাঙ্গানো যায়?

বাংলাদেশের বিভিন্ন ব্যাংক, অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠান কিংবা বৈদেশিক বাণিজ্যে লিপ্ত এমন প্রতিষ্ঠান থেকে আপনি সৌদি রিয়াল ভাঙ্গাতে পারবেন। সৌদি রিয়াল ভাঙানোর ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য ক্ষেত্রগুলো নিচে তুলে ধরা হলো:

(১) ব্যাংক থেকে

ব্যাংক হল সৌদি রিয়াল ভাঙানোর জন্য সবচেয়ে নিরাপদ মাধ্যম। বাংলাদেশের প্রায় সকল অনুমোদিত ব্যাংক থেকেই আপনি বিদেশী মুদ্রা বিনিময়ের সেবা গ্রহণ করতে পারবেন। যেমন: 

  • বাংলাদেশ ব্যাংক,
  • সোনালী ব্যাংক,
  • জনতা ব্যাংক,
  • ডাচ-বাংলা ব্যাংক,
  • ব্র্যাক ব্যাংক ইত্যাদি।

(২) মানি এক্সচেঞ্জ হাউস

বিভিন্ন মানি এক্সচেঞ্জ হাউস বা ফরেক্স বিউরোগুলো বিদেশি মুদ্রা বিনিময়ের সেবা দিয়ে থাকে। মানি এক্সচেঞ্জ হাউসগুলো সাধারণত ব্যাংকের তুলনায় দ্রুত এবং সহজ সেবা প্রদান করে। বাংলাদেশের কিছু জনপ্রিয় মানি এক্সচেঞ্জ হাউস হলো:

  • গ্রামীণ মানি এক্সচেঞ্জ,
  • ডলফিন মানি এক্সচেঞ্জ,
  • এসএস মানি এক্সচেঞ্জ।

(৩) বিমানবন্দর থেকে

বিমানবন্দর গুলোতে সাধারণত মানি এক্সচেঞ্জ কাউন্টার থাকে, যেখানে আপনি সৌদি রিয়ালসহ অন্যান্য বিদেশি মুদ্রা বিনিময় করতে পারবেন। বিমানবন্দরের মানি এক্সচেঞ্জ কাউন্টার গুলো সাধারণত ২৪ ঘণ্টা খোলা থাকে এবং তাৎক্ষণিক সেবা প্রদান করে।

(৪) অনলাইন মানি এক্সচেঞ্জ সেবা

অনলাইন মানি এক্সচেঞ্জ সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলোও বিদেশি মুদ্রা বিনিময়ের সুবিধা দেয়। কিছু অনলাইন সেবার মাধ্যমে আপনি সহজেই সৌদি রিয়াল ভাঙ্গাতে পারবেন। তবে এই প্রক্রিয়াটি তুলনামূলক জটিল। অনলাইন মানি এক্সচেঞ্জ সেবা প্রদানকারী কয়েকটি জনপ্রিয় প্ল্যাটফর্ম হলো:

  • রেভোলুট (Revolut)
  • ট্রান্সফারওয়াইজ (TransferWise)
  • পেওনিয়ার (Payoneer)

এছাড়াও বৈদেশিক বাণিজ্য করে এমন স্থানীয় ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান থেকে আপনার সৌদি রিয়াল ভাঙাতে পারবেন।

সৌদি রিয়ালের ইতিহাস

বর্তমানের সৌদি রিয়ালের সূচনা হয়েছিল বহুকাল পূর্বেই। এটি কোন নতুন মুদ্রা নয়। সৌদি আরবের প্রতিষ্ঠাকাল থেকেই এই ‘রিয়াল’ ছিল দেশের ব্যবহৃত মুদ্রা। তবে এর আগে থেকেই এটি ছিল উসমানীয় যুগে ভূমধ্যসাগরীয় অঞ্চলের অন্যতম প্রাথমিক মুদ্রা, যা হেজাজের মুদ্রা হিসেবে পরিচিত ছিল। 

উসমানীয় যুগে হেজাজ রিয়াল ছিল ২০ কুরুশ মুদ্রার উপর ভিত্তি করে তৈরি এবং একটি হেজাজ রিয়াল ২০ টি কিরশে বিভক্ত ছিল। তখনকার হেজাজ রিয়ালের ওজনও ছিল অটোমান ২০ কুরুশের সমান। যেহেতু প্রথম সৌদি রিয়ালের হেজাজ রিয়ালের মতো একই স্পেসিফিকেশন ছিল এবং উসমানীয় মুদ্রার পাশাপাশি এটি প্রচারিত হয়েছিল। 

তারপর এটি ধীরে ধীরে ২২ অটোমান কুরুশের মূল্যে ব্যবহৃত হতে থাকে। পরবর্তীতে ১৯২৫ সালে কিরশ নামক মুদ্রা জারি করা হলে, ২২ গিরশে উপবিভক্ত করা হয়। ১৯৬০ সাল থেকে আবার এই বিনিময় পদ্ধতিকে ২০ কিরশ থেকে রিয়ালে পরিবর্তন করা হয়, যা ১৯৬৩ সাল থেকে হালালা প্রবর্তনের মাধ্যমে প্রচলন হয়। এক রিয়ালের ১০০ ভাগের ১ ভাগকে ১ হালালা বলা হয়।

সৌদি রিয়ালের বিনিময় হার কিভাবে নির্ধারণ করা হয়

সৌদি রিয়াল (SAR) এর বিনিময় হার নির্ধারণের প্রক্রিয়াটি একটি জটিল অর্থনৈতিক প্রক্রিয়া। এটি বিভিন্ন আন্তর্জাতিক এবং স্থানীয় অর্থনৈতিক উপাদানের উপর নির্ভর করে। নিচে সৌদি রিয়ালের বিনিময় হার নির্ধারণের পদ্ধতি এবং মূল উপাদানগুলো সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরা হয়:

(১) সৌদি আরবের কেন্দ্রীয় ব্যাংক (Saudi Arabian Monetary Authority, SAMA) দেশের মুদ্রানীতি পরিচালনা করে এবং রিয়ালের বিনিময় হার স্থিতিশীল রাখতে প্রধান ভূমিকা পালন করে। কেন্দ্রীয় ব্যাংক প্রায়ই বিদেশি মুদ্রার বিপরীতে রিয়ালের মান স্থিতিশীল রাখার চেষ্টা করে, বিশেষ করে মার্কিন ডলারের বিপরীতে।

(২) অর্থনৈতিক সূচক যেমন জিডিপি প্রবৃদ্ধি, মুদ্রাস্ফীতি, বেকারত্ব হার ইত্যাদি রিয়ালের বিনিময় হার নির্ধারণে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। যদি দেশের অর্থনীতি শক্তিশালী হয়, তাহলে রিয়ালের মানও উচ্চতর থাকে।

(৩) সৌদি আরব একটি প্রধান তেল রপ্তানিকারক দেশ। বিশ্ব বাজারে তেলের মূল্য পরিবর্তন সরাসরি রিয়ালের বিনিময় হারকে প্রভাবিত করে। তেলের মূল্য বৃদ্ধি পেলে সৌদি আরবের রপ্তানি আয় বৃদ্ধি পায়, যা রিয়ালের মান বৃদ্ধিতে সহায়ক হয়।

(৪) সৌদি আরবের আমদানি ও রপ্তানির ভারসাম্য রিয়ালের বিনিময় হার নির্ধারণে গুরুত্বপূর্ণ প্রভাব ফেলে। যদি রপ্তানি আমদানির চেয়ে বেশি হয়, তবে রিয়ালের মান বৃদ্ধি পায়। বিপরীতে, আমদানি বেশি হলে রিয়ালের মান কমে যেতে পারে।

(৫) আন্তর্জাতিক মুদ্রা বাজারের চলমান ক্রিয়া-বিক্রিয়া, চাহিদা ও যোগান রিয়ালের বিনিময় হার-কে প্রভাবিত করে।

(৬) মুদ্রাস্ফীতি হার

মুদ্রাস্ফীতি একটি দেশের মুদ্রার ক্রয়ক্ষমতাকে প্রভাবিত করে। যদি সৌদি আরবে মুদ্রাস্ফীতি হার বেশি হয়, তাহলে রিয়ালের মান কমে যেতে পারে।

(৭) বিদেশি বিনিয়োগ ও আর্থিক সহযোগিতা রিয়ালের বিনিময় হারকে প্রভাবিত করে। বিদেশি বিনিয়োগ বৃদ্ধি পেলে রিয়ালের চাহিদা বাড়ে এবং তার মান বৃদ্ধি পায়।

উপরোক্ত উপাদান গুলোর উপর ভিত্তি করে সৌদি রিয়ালের বিনিময় হার নির্ধারণ করা হয়।

সৌদি রিয়ালের স্থির বিনিময় হার

সৌদি রিয়ালের স্থির বিনিময় হার নির্ধারণ করা হয়েছিল ১৯৮৬ সালের জুন মাসে। তখন রিয়ালকে আনুষ্ঠানিকভাবে IMF- এর বিশেষ অঙ্কন অধিকারে সংযুক্ত করা হয়েছিল। সেখানে সৌদি রিয়ালের বিনিময় হার হিসেবে 1 ইউএস ডলার = 3.75 রিয়ালে স্থির করা হয়। অর্থাৎ 1 রিয়াল = 0.266667 ডলার। ২০০৩ সালের ১ জানুয়ারী এই বিনিময় হারকে সরকারি করা হয়।

সৌদির বিভিন্ন মুদ্রা ও নোটের সংক্ষিপ্ত বিবরণ

সৌদি রিয়ালের বিভিন্ন মুদ্রা এবং নোট রয়েছে, যা তাদের মূল্য এবং গঠনের ভিত্তিতে বিভিন্ন ধরনের হয়। নিচে সৌদি রিয়ালের প্রধান মুদ্রা এবং নোটগুলোর বিবরণ দেওয়া হলো:

মুদ্রা বা কয়েন (Coins)

  • ১ হালালা = 0.01 SAR (এটি অ্যালুমিনিয়ামের তৈরি),
  • ৫ হালালা = 0.05 SAR (এটি অ্যালুমিনিয়াম-ব্রোঞ্জের তৈরি),
  • ১০ হালালা = 0.10 SAR (এটি অ্যালুমিনিয়াম-ব্রোঞ্জের তৈরি),
  • ২৫ হালালা = 0.25 SAR (এটি অ্যালুমিনিয়াম-ব্রোঞ্জের তৈরি),
  • ৫০ হালালা = 0.50 SAR (এটি অ্যালুমিনিয়াম-ব্রোঞ্জের তৈরি),
  • ১ রিয়াল বা 1 SAR (এটি নিকেল-ব্রাস দিয়ে তৈরি)

ব্যাংক নোট সমূহ (Banknotes)

  • ১ রিয়াল = 1 SAR (এটি কাগজের তৈরি)
  • ৫ রিয়াল = 5 SAR (এটি পলিমার দিয়ে তৈরি)
  • ১০ রিয়াল = 10 SAR (এটি কাগজের তৈরি)
  • ২০ রিয়াল = 20 SAR (এটি পলিমার দিয়ে তৈরি)
  • ৫০ রিয়াল = 50 SAR (এটি কাগজের তৈরি)
  • ১০০ রিয়াল = 100 SAR (এটি কাগজের তৈরি)
  • ২০০ রিয়াল = 200 SAR (এটি কাগজের তৈরি)
  • ৫০০ রিয়াল = 500 SAR (এটি কাগজের তৈরি)

আল রাজি ব্যাংক টাকার রেট কত?

আল রাজি ব্যাংক টাকার রেট ৩১.৩৪ টাকা।

লেখাটি পড়ে যা জানতে পারবেন: সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ, ১ রিয়াল = কত টাকা, সৌদি ১ রিয়াল কত টাকা, সৌদি রিয়াল রেট বাংলাদেশ বিকাশ, সৌদি রিয়াল বাংলাদেশ রেট কত, সৌদি ১ টাকা বাংলাদেশের কত টাকা, সৌদি টাকার রেট ইত্যাদি।

সূত্র: প্রবাসীর দিগন্ত

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top